অসুস্থ শ্রমিকরা কেউ অক্সিজেন সিলিন্ডার, কেউ স্ক্রাচ নিয়ে কারখানার গেটে বিক্ষোভে সামিল হলেন

দুর্গাপুর দর্পণ, দুর্গাপুর, ১১ জুলাই ২০২৪: বছরের পর বছর চাকরি করেছেন এই কারখানায়। কেউ ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়েছেন। কারওর পা নষ্ট হয়ে গিয়েছে। কারওর শরীরের একটা অংশ অবশ হয়ে গিয়ে শয্যাশায়ী হয়ে পড়েছেন। অথচ তাঁদের আরও অনেকদিন চাকরি ছিল। তাঁদের দাবি, পরিবারের কাউকে চাকরি দেওয়া হোক যাতে তাঁরা খেতে পান, চিকিৎসা করাতে পারেন। কিন্তু কারখানা কর্তৃপক্ষ নির্বিকার। শাসক দলের শ্রমিক সংগঠন আইএনটিটিইউসির উচ্চ নেতৃত্বও কিছু করছেন না। এমন অভিযোগ তুলে বৃহস্পতিবার অসুস্থ শ্রমিকরা কেউ অক্সিজেন সিলিন্ডার, কেউ স্ক্রাচ নিয়ে কারখানার গেটে বিক্ষোভে সামিল হলেন।

পশ্চিম বর্ধমান জেলার (Paschim Bardhaman) দুর্গাপুরের সগরভাঙায় রয়েছে বেসরকারি গ্রাফাইট কারখানা। সেই কারখানায় এমন কর্মীর সংখ্যা প্রায় ৪৫ জন। দীর্ঘদিন ধরে তাঁরা তাঁদের দাবি জানাচ্ছেন কারখানা কর্তৃপক্ষ। স্বেচ্ছাবসর প্রকল্পের মাধ্যমে কেউ ছেলের চাকরি দাবি করছেন, কেউ জামাইয়ের চাকরি দাবি করছেন। কিন্তু ১০-১২ বছর ধরে কাজ হচ্ছে না কারওর। এদিকে রোজগার বন্ধ হয়ে যাওয়ায় চরম বিপাকে পড়েছেন তাঁরা। বৃহস্পতিবার তাই তাঁদের অনেকে কারখানার গেটে প্রতিবাদ কর্মসূচীতে সামিল হন। 

( BCREC & Group of institutions । পূর্ব ভারতের সেরা শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। 933927844, 9832131164, 9932245570, 9434250472) 

আইএনটিটিইউসির উচ্চ নেতৃত্বকে দায়ী করে ওই কারখানার আইএনটিটিইউসির দায়িত্বপ্রাপ্ত, সাধারণ সম্পাদক শেখ রমজান আলীর অভিযোগ, রাজের দুই মন্ত্রী মলয় ঘটক, প্রদীপ মজুমদার, জেলা আইএনটিটিইউসি সভাপতি অভিজিৎ ঘটককে জানানো হয়েছে একাধিকবার। কোনও কাজ হয়নি। এই অসহায় মানুষদের দাবি যতদিন না মিটবে কারখানার গেটে আন্দোলন চলবে। তাতে জঙ্গি আন্দোলন তকমা জোটে তাতে তিনি পিছপা হবেন না বলে হুঁশিয়ারি দেন শেখ রমজান। (বিশেষ ভিডিও দেখতে DURGAPUR DARPAN ইউটিউব চ্যানেলটিও সাবস্ক্রাইব করুন)।

Leave a Comment

error: Content is protected !!
mission hospital advt