ফ্যাটি লিভার থেকে বাঁচতে নিয়মিত এক্সারসাইজ মাস্ট

দুর্গাপুর দর্পণ ডেস্ক, ১ নভেম্বর ২০২৩: ফ্যাটি লিভার আজকাল খুব সাধারণ অসুখ হয়ে দাঁড়িয়েছে। একটি সমীক্ষায় জানা গিয়েছে, আমাদের দেশের প্রায় ১৫ শতাংশ মানুষ এই সমস্যায় আক্রান্ত। তবে এই সমস্যার সমাধান কিন্তু শুধু ওষুধেই মিটবে না। নিয়মিত এক্সারসাইজও কিন্তু সমান গুরুত্বপূর্ণ। কারণ আক্রান্তদের মাত্র ১ শতাংশের ওষুধ লাগে। বাকি ৯৯ শতাংশের জন্য কিন্তু শুধুমাত্র সঠিক লাইফস্টাইল এবং নিয়মিত এক্সারসাইজ বা কায়িক পরিশ্রম জরুরী।

লিভারে অতিরিক্ত ফ্যাট জমলে ফ্যাটি লিভার হয়। তাই প্রসেস ফুড, প্যাকেজ ড্রিংক, কোল্ড ড্রিংক, শিঙাড়া, চানাচুর, কচুরি, চিপস ইত্যাদি বেশি খেলে ফ্যাটি লিভার ডিজিজ হতে পারে। আবার যাঁরা অপুষ্টিতে ভোগেন, ঠিক মতো খেতে পান না, পর্যাপ্ত ভিটামিন, মিনারেল, প্রোটিনের অভাব হলে তাঁদের ক্ষেত্রেও কিন্তু ফ্যাটি লিভারে আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

অ্যালকোহল বা মদ ফ্যাটিলিভার ডিজিজের একটি অন্যতম কারণ। যাঁরা সারাদিন বসে থাকেন, কোনও কায়িক পরিশ্রম করেন না, তাঁদের ক্ষেত্রেও ফ্যাটি লিভারের সম্ভাবনা থাকে।ফ্যাটি লিভারে ঘি, বাটার বা মার্জারিন না খাওয়াই ভাল। রেডমিটও খাওয়া উচিত নয়। গবেষকদের দাবি, সপ্তাহে মোট ১৫০ মিনিট বা আড়াই ঘণ্টা যদি মাঝারি থেকে দ্রুতগতির অ্যারোবিক এক্সারসাইজ করা যায়, যেমন হাঁটা, দৌড়ানো, সাঁতারকাটা ইত্যাদি, তাহলে ফ্যাটিলিভার নিয়ন্ত্রণে আনা সম্ভব। (বিশেষ বিশেষ ভিডিও দেখতে DURGAPUR DARPAN ইউটিউব চ্যানেলটিও সাবস্ক্রাইব করুন)।

Disclaimer: প্রতিবেদনটি বিভিন্ন সূত্র থেকে প্রাপ্ত তথ্যের ভিত্তিতে লেখা। তবে কোনও সিদ্ধান্ত নেওয়ার আগে অবশ্যই চিকিৎসকের পরামর্শ নিন।

Leave a Comment

error: Content is protected !!
mission hospital advt